দহগ্রামে পৈতৃক ভোগ দখলিয় জমি খাস করার অভিযোগ

Google+ Pinterest LinkedIn Tumblr +

লেখাটি এম. এ. মোমিন এর ফেসবুক টাইমলাইন থেকে সংগ্রহ করা।

” আলোচিত তিনবিঘা কড়িডোর দহগ্রাম -আঙ্গরপোতা, এখানে ২৪ঘন্টা গেট এবং রাস্তা হয়েছে,
বিদুৎ দেওয়া হয়েছে, স্কুল – কলেজ – মাদ্রাসা – তদন্ত থানা – ব্রিজ – ১০ শয্যা বিশিষ্ট হাসপাতাল, এবং অনেক উন্নয়ন মূলক কাজ হয়েছে, কিন্তু দহগ্রামের
মানুষগুলি খুব সহজ সরল মনের মানুষ, আছে বুকভরা ভালবাসা, রেকর্ড় সম্পর্কে তাদের কোন ধারণা ছিল না, দহগ্রামের জমি দখল সূত্রে মালিকানা

রেকর্ড় না বুঝার কারণে, ১৪০০ একর জমিগুলি খাস
হয়েগেছে, তাই জমি গুলি দহগ্রামের সাধারন মানুষ
দখল সূত্রে রেকর্ড় চায়, এবং খাস জমির উপর
গৃহনির্মাণ —
গুচ্ছগ্রাম, ফরেস্ট – বাগান চাই না, চাই চাষাবাদ
আবাদী জমি,,, দহগ্রামে এত উন্নয়ন দিয়ে কি হবে
যদি জমি না থাকে। এই জমির উপর সাধারন মানুষগুলি
নির্ভরশীল, ছেলে – মেয়ে লেখাপড়া খরচ – সংসারের
খচর চালাতে হয়। অতিবিলম্বে জমিগুলি দহগ্রামের
সাধারন মানুষগুলি কে দখল সূত্রে রেকর্ড় করে
দেওয়ার জন্য সরকারের দৃষ্টি আর্কষন করছি,,,

পাশাপাশি সংবাদ সম্মেলন করা হয়েছে ”

Share.

একটি রিপ্লে দিন